দহন (সেই সাতদিন প্রারম্ভিক)

দহন

দহন (সেই সাতদিন প্রারম্ভিক)

*****************

– কি করে পারো এত লিখতে?
– কি লিখতে পারি?
– এইযে এতো কবিতা, এতো গল্প!
– অরণ্য পারে, আনুশকার জন্য অনেক কিছুই পারে।
– অনেক কিছুই? সব কিছু কেন নয়?
– সবকিছু যে আর সম্ভব নয় আনুশকা।
– তাহলে আর কথা বলো না।
– কথা না বলে বাঁচবো কি করে?
– শুধু কথা না, লিখবেও না।
– না লিখলে বাঁচবো কি নিয়ে?
– বাঁচা লাগবে না, তুমি মরো।
– আমি মরলে তোমার শান্তি?
– বেঁচে থেকেও তো অশান্তি।
– তাহলে আর কথা বলবে না?
– তুমি পারবে আমাকে বন্দীখানা থেকে দুরে কোথাও উড়িয়ে নিয়ে যেতে?
– তোমার মনতো বন্দী নয়।
– অরণ্য সবকিছু তুমি পারো না। তুমি পারবে না।
– চিঠি দিও।
– তুমি কথা বলো না। এসএমএস, ম্যাসেঞ্জার, চ্যাটিং কিছুই কোরো না।
– তুমি নিষ্ঠুর।
– চললাম।
– একটু দাঁড়াও।
– কেন?
– তোমাকে আরেকটু দেখি।
– মনের চোখে দেখো।
– আর আসবে না?
– যতদিন আমার তোমাকে দেখতে ইচ্ছে না করবে।
– যদি ততদিন আমি না বাঁচি।
– না বাঁচলে আমি বাঁচি। তুমি মরো না কেন?
– অরণ্যরা মরে না। অরণ্যরা গহীন অন্ধকার বুকে নিয়ে বেঁচে থাকে কাল, মহাকাল।
– ঢং কোরো না। আমি যতদিন না চাই, তুমি আমাকে আর খুঁজবে না।
– ঠিক আছে। তাতে যদি তুমি ভাল থাকো, তবে তাই হোক। আমি চলে যাব দুরে, বহুদূরে। কালের অন্তরালে।

এরপর আনুশকা চলে যায় অরণ্যর ধূসর ভোরের কুয়াশা উপেক্ষা করে। আনুশকা ফিরে তাকায় না। ফিরে তাকালে দেখতে পেত, অরণ্যর দুচোখ চিরে কঠিন অন্ধকার ভেদ করে গড়িয়ে পড়ছে অঝোর অশ্রু। সে অশ্রু নেভাতে পারেনি অরণ্যর বুকের দহন।

 

 

______________

১০ বছর পরে কি হলো জানতে পড়ুন “সেই সাতদিন” 

_______________

কপিরাইটঃ আশিক মজুমদার © ২০১৮। সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত।

এই ছোটগল্পটি প্রথম প্রকাশিত হয়েছে  probhat.com এ। প্রভাতে প্রকাশিত যেকোন লেখা প্রভাতের কিংবা লেখকের পূর্ব অনুমতি ব্যাতিত অন্যত্র প্রকাশ করা কিংবা অন্য যেকোন মাধ্যমে কপি পেস্ট করা বাংলাদেশ কপিরাইট আইন দারা নিষিদ্ধ।

প্রভাতে প্রকাশিত সমস্ত লেখা বাংলাদেশ কপিরাইট আইন দ্বারা নিবন্ধিত। প্রভাত একটি বাংলা সাহিত্য বিষয়ক ওয়েব সাইট। এই ওয়েব সাইটে প্রকাশিত সমস্ত লেখা লেখকের ব্যাক্তিগত সম্পদ। লিখিত অনুমতি ব্যতিরকে এই সাইটের কোন লেখা কপি করা, পরিবর্তন করা, পরিমার্জন করা, ছাপানো ইত্যাদি সম্পূর্ণ বেআইনি এবং দণ্ডনীয়। প্রভাতের সাথে যোগাযোগ করতে চাইলে লিখুন এই ঠিকানায় admin@probhat.com

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *